• পরীক্ষামূলক সম্প্রচার
  • বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০, ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭
  • ||
  • আর্কাইভ

ব্রেকিং নিউজ

পৌর মেয়র জিল্লুর রহমান জুয়েলের সরাসরি হস্তক্ষেপ

চাঁদপুর শহরের লেকের পাড় সিএনজি অটোরিকশা স্ট্যান্ড ও মিশন রোড থেকে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

প্রকাশ:  ১৭ নভেম্বর ২০২০, ১৩:৫৫
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট

শহরকে নান্দনিক করে তুলতে হলে প্রথম কাজ হচ্ছে সড়কের আশপাশের জায়গাসহ সকল জায়গা দখলমুক্ত করা। অর্থাৎ শহর পুরো ক্লিন থাকবে। আর এ কাজটিই শুরু করেছেন চাঁদপুর পৌরসভার মেয়র অ্যাডঃ মোহাম্মদ জিল্লুর রহমান জুয়েল। চাঁদপুর শহরের মিশন রোড এলাকায় শাহী মসজিদের পশ্চিম পাশে লেকের পাড়ে অবস্থিত অবৈধ স্থাপনা এবং শহীদ মুক্তিযোদ্ধা সড়কস্থ লেকের পাড়ের সিএনজি অটোরিকশা স্ট্যান্ড থেকে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ কাজ শুরু করা হয়েছে।


পৌর মেয়র জিল্লুর রহমান জুয়েলের সরাসরি হস্তক্ষেপে এবং তাঁর উপস্থিতিতে গতকাল এ অভিযান চলে। গতকাল ১৬ নভেম্বর সোমবার বিকেলে আকস্মিকভাবে মেয়র অ্যাডঃ মোঃ জিল্লুর রহমান জুয়েল চাঁদপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ নাসিম উদ্দিন, ওসি (তদন্ত) মোঃ হারুনুর রশিদ সঙ্গীয় ফোর্সসহ শহরের মিশন রোড এলাকায় অভিযান চালান। দেখা গেছে যে, মিশন রোডের শাহী মসজিদের পেছনে পশ্চিম পাশে লেকের পাড়ে উক্ত এলাকার জুম্মন খান অবৈধভাবে বেশ কয়েকটি স্থাপনা গড়ে তুলে ছোট ছোট দোকান নির্মাণ করে তা ভাড়া দেন। তাৎক্ষণিক কিছু দোকান উচ্ছেদ করা হয়। বাকিগুলো আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে সরিয়ে নেয়ার জন্যে নির্দেশ দিয়ে আসেন মেয়র।

 


এরপর তিনি শহরের শহীদ মুক্তিযোদ্ধা সড়কস্থ লেকের পাড় সিএনজি অটোরিকশা স্ট্যান্ডে গিয়ে সেখানে অবৈধভাবে গড়ে উঠা সকল দোকানের মালিকদের ডেকে বলেন, শহরের সৌন্দর্য ও নান্দনিক স্থান এটি। তাই এ স্থানকে আরো সৌন্দর্য করার লক্ষ্যে অবৈধভাবে গড়ে তোলা তাদের দোকান সরিয়ে ফেলতে হবে।


মেয়র জিল্লুর রহমান জুয়েল অবৈধভাবে তোলা দোকান মালিকদের আশ্বস্ত করে বলেন, আপনারা আমার নির্দেশনা অনুযায়ী এগুলো সরিয়ে নেন। আমি আপনাদের জন্যে বিকল্প স্থানের জন্যে আপ্রাণ চেষ্টা করবো। এ সময় মেয়রের বিনয়ীভাবে বলা কথা শুনে উপস্থিত সকলে খুশি মনে তাদের নিজের স্থাপনাগুলো নিজেরাই সরিয়ে নেন। কিছু দোকানের মালিক না থাকার কারণে তাৎক্ষণিক মেয়র পৌরসভার গাড়ি ডেকে ওই মালামালগুলো নিয়ে আসার নির্দেশ দেন।