• পরীক্ষামূলক সম্প্রচার
  • মঙ্গলবার, ২৫ জানুয়ারি ২০২২, ১১ মাঘ ১৪২৮
  • ||
  • আর্কাইভ

‘৩৬০ চেয়ারম্যান প্রার্থীর বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয় উদ্বেগের’

প্রকাশ:  ২২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৩:৫৬
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট

চলমান ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে সারাদেশে ৩৬০ জন চেয়ারম্যান প্রার্থী এবং অন্যান্য পদে প্রায় এক হাজার ৬০০ প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিজয়ী হয়েছেন। প্রতিদ্বন্দ্বিতার এসব বিজয় ‘গণতন্ত্রের জন্য উদ্বেগের’।

মঙ্গলবার (২১ ডিসেম্বর) চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে ইউপি নির্বাচন নিয়ে আইনশৃঙ্খলা সভা শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা জানান নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার।

তিনি বলেন, একটি গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়াকে উৎসাহিত করা সমীচীন নয়। এ অবস্থা থেকে উত্তরণের জন্য আমাদের নির্বাচন ব্যবস্থায় কোনো পরিবর্তন আনা দরকার আছে কি না, তা ভেবে দেখতে হবে।

মাহবুব তালুকদার বলেন, বর্তমান নির্বাচন কমিশনের মেয়াদ আর মাত্র ৫৫ দিন। এর মধ্যে যা নির্বাচন হবে, তা সুষ্ঠু করার জন্য চেষ্টা থাকবে। কারণ, শেষ ভালো যার সব ভালো তার। নতুন নির্বাচন কমিশন এলে তাদেরও বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় প্রার্থীদের বিজয়ী হওয়ার বিষয়টি নিয়ে ভাবতে হবে।

তিনি আরও বলেন, ষষ্ঠ ধাপের ইউপি নির্বাচনে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোটগ্রহণ হবে। এটিকে আমরা চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছি। এরই মধ্যে তফসিল ঘোষণা হয়েছে। এ নির্বাচন সুষ্ঠু করার সর্বাত্মক চেষ্টা থাকবে।

বর্তমান নির্বাচন কমিশনের সফলতা বিষয়ে জানতে চাইলে মাহবুব তালুকদার বলেন, আমার আরও চারজন সহকর্মী আছেন। তাদের মধ্যে একেকজনের অনুভূতি একেকরকম। আমার অনুভূতি আমার মতো। তবে এখানে আমি আমার ব্যক্তিগত অনুভূতি প্রকাশ করতে চাই না। কমিশনের অনুভূতিই আমার অনুভূতি।

এর আগে বেলা ১১টার দিকে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন নিয়ে আইনশৃঙ্খলা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

চট্টগ্রামের বিভাগীয় কমিশনার কামরুল হাসানের সভাপতিত্বে সভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম রেঞ্জ পুলিশের উপ-মহাপরিদর্শক (ডিআইজি) আনোয়ার হোসেন, চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ (সিএমপি) কমিশনার সালেহ মো. তানভীর, অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মিজানুর রহমান, চট্টগ্রাম আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মো. হাসানুজ্জামান, চট্টগ্রাম বিভাগের জেলা প্রশাসকরা ও নির্বাচন কর্মকর্তারা।